ইউএনপিএস অর্জনে প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানিয়ে মন্ত্রিসভায় প্রস্তাব গৃহীত

0
4

মোঃ নাসির,বিশেষ প্রতিনিধি :বাংলাদেশ‘ডেভেলপিং ট্রান্সপারেন্ট অ্যান্ড অ্যাকাউন্টেবল পাবলিক ইনস্টিটিউশনস’ক্যাটাগরিতে সম্মানসূচক ইউনাইটেড ন্যাশনস পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড ২০২০ (ইউএনপিএসএ ২০২০) অর্জন করায় মন্ত্রিসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়ে প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে।

গত ৮ জুন অনুষ্ঠিত মন্ত্রিপরিষদের বৈঠকে এই অভিনন্দন প্রস্তাবটি গৃহীত হয়। আজ এক তথ্য বিবরণীতে বলা হয়, গত ১৫ জুন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ এ ব্যাপারে একটি গেজেট নোটিফিকেশন জারি করে।

ভূমি মন্ত্রণালয়ের ই-মিউটেশন কর্মসূচি সফলভাবে বাস্তবায়নের জন্য বাংলাদেশ ইউএনপিএসএ ২০২০ অর্জন করেছে।

গত ১ জুন, ২০২০ জাতিসংঘের অর্থনৈতিক ও সামাজিক বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি জেনারেল লিউ ঝেনমিন জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাবাব ফাতিমাকে জাতিসংঘের পুরস্কার লাভের বিষয়টি অবহিত করেন। প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ সম্মানসূচক এই পুরস্কার অর্জন করেছে।

প্রস্তাবটিতে বলা হয়েছে, মন্ত্রিপরিষদ বিশ্বাস করে যে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্ব, প্রজ্ঞা, দূরদর্শিতা ও কার্যকরী সিদ্ধান্ত বাংলাদেশকে এই নজিরবিহীন সাফল্য অর্জন করতে সাহায্য করেছে।

‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ গড়ে তোলার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রীর বিভিন্ন দূরদর্শী পদক্ষেপের কারণেই এই সম্মানজনক পুরস্কার অর্জন করা সম্ভব হয়েছে। বিগত ১০ বছরে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অক্লান্ত প্রয়াস এবং সরাসরি তদারকির কারণেই দেশের ভূমি ব্যবস্থাপনায় আমূল পরিবর্তন এসেছে।

ভূমি সেবায় স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার মাধ্যমে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তোলা এবং বর্তমান সরকারের রূপকল্প ২০২০ এর লক্ষ্য অর্জনে ই-মিউটেশন একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

তিনটি পার্বত্য জেলা ছাড়া দেশের সর্বত্র ই-মিউটেশন বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। আইসিটি বিভাগের এটুআই প্রকল্প এতে কারিগরি সহায়তা দিচ্ছে।
ভূমি সংস্কার বোর্ডের ব্যবস্থাপনায় সহকারী কমিশনার (ভূমি) এটি বাস্তবায়ন করছেন।

আপনার মতামত প্রকাশ করেন

আপনার মন্তব্য দিন
আপনার নাম এন্ট্রি করুন