কাঁচামরিচের ঝাল না কমতে, বেড়েছে পেঁয়াজের ঝাঁজ !

0
13

এম হায়দার চৌধুরী, শায়েস্তাগঞ্জ (হবিগঞ্জ):: শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার খুচরা বাজারে কাঁচা মরিচের ঝাল না কমতেই, বেড়েছে পেঁয়াজের ঝাঁজ। হঠাৎ করেই উপজেলার সকল বাজারে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে। দুই সপ্তাহের ব্যবধানে দ্বিগুণেরও বেশি হয়েছে পেঁয়াজের দাম। সর্বশেষ কয়েকদিন পূর্বেও যে পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে ২০ থেকে ২৫ টাকা কেজিতে, সে পেঁয়াজ আজ বিক্রি হয়েছে ৪৫ থেকে ৫০ টাকা কেজি দরে। হঠাৎ করে পেঁয়াজের এরকম অগ্নিমূল্যে বেকায়দায় পড়েছেন সাধারণ মানুষজন।

এদিকে সবজির বাজারে অন্যান্য সবজির মূল্য স্থিতিশীল থাকলেও লাগাম টেনে ধরা যাচ্ছেনা করলার দামের। কয়েকদিন ধরে করলার দামের এ ঊর্ধ্বগতি রোধ করা যাচ্ছেনা। একমাস পূর্বেও করলার দাম ছিল কেজি ৩০-৪০ টাকা, আজকের বাজারে করলার দাম ৬০-৭০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। অন্যদিকে একই সময়ে অতি বৃষ্টি ও জলাবদ্ধতার কারনে কাঁচালঙ্কার দাম এক লাফে ৩০ টাকা থেকে ২শ টাকায় উঠে। এর পর থেকে অদ্যবধি কাঁচা মরিচের দামের পারদ আর নামছেনা।
এ ব্যাপারে হবিগঞ্জের পাইকারী পেঁয়াজ ব্যবসায়ীর মোঃ আতাউর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, বেশ কয়েকদিন ধরেই পেঁয়াজের দাম উঠানামা করছে। গত সপ্তাহে পেঁয়াজের দাম কিছুটা কমে আসলেও গতকাল থেকে তা আবার বেড়েছে। তিনি আরও জানান, গতকাল মঙ্গলবার আমদানীস্থলে ৩৮ টাকা কেজি দরে ভারতীয় পেঁয়াজ কিনেছেন। সেই পেঁয়াজ হবিগঞ্জ এসে পৌঁছাতে মূল্য হবে ৪৩ টাকা। আজকে শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলা সদরের কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা যায়, খুচরা দোকানীরা মানভেদে পেঁয়াজ ৪৫/৫০ টাকায় বিক্রি করছেন।

বাজারে আসা ক্রেতা বাবুল মিয়া জানান, হঠাৎ করেই পেঁয়াজের ঝাঁঝ বেড়ে গেছে। ২৫ টাকা কেজি দরের পেঁয়াজ এক লাফে গেছে ৫০ টাকায়। তিনি আরও বলেন, করলার দামের বেলায়ও তাই, ৪০ টাকার করলা ৬০ টাকায় উঠেছে আর নামছেনা।

সাধারণ ক্রেতা-বিক্রেতাদের সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা সবাই অনতিবিলম্বে বাজারে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে প্রশাসনের নজরদারি ও সরাসরি হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

আপনার মতামত প্রকাশ করেন

আপনার মন্তব্য দিন
আপনার নাম এন্ট্রি করুন