গাজীপুরে ১ অজ্ঞাত হতভাগার গল্প” গাসিক মেয়রের ভূমিকা

0
10

২৪ জুন দুপুরে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের জয়দেবপুর রেল স্টেশনের পাশে রাস্তায় অজ্ঞাত ব্যক্তিটি পড়েছিল, চলার পথে শত শত মানুষের মতোই দেখতে প্রাণীগুলো তাকে অতিক্রম করে যাচ্ছিল, ঘটনাস্থলে জানা যায় ভ্যান গাড়িতে করে দিনে-দুপুরে হতভাগা মানুষটিকে কেউ রাস্তার পাশে ফেলে গেছে, মহামারীর এই মহাদুর্যোগে সবাই নিজেকে এবং নিজের পরিবারকে নিয়ে চিন্তিত, মানবতার তাগিদে কিছু সময়ের জন্য নিজের কথা ভুলে একটু সাহস করে এগিয়ে গেলেন গাজীপুর সিটির বিদ্যুৎ প্রকৌশলী ইঞ্জিনিয়ার তানভির সাহেব ও ইঞ্জিনিয়ার রুহুল আমিন , কিন্তু এই মহাদুর্যোগ তাদের একার পক্ষে কিছু করা সম্ভব না, এমতাবস্থায় মাননীয় মানবিক মেয়র স্যার কে ঘটনাটি অবহিত করা হয় , মাত্র এক দিন পূর্বে পিতৃতুল্য অভিভাবক মামাকে হারানোর শোকে মুহ্যমান মেয়র মহোদয় তখন মামার কবরের পাশে কবর জিয়ারত করছিলেন। ঘটনাটি জানার পর তিনি তাৎক্ষণিক লোকটিকে হাসপাতালে নেওয়ার নির্দেশ ও সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করেন, মেয়র মহোদয়ের নির্দেশে সিটি কর্পোরেশনের ডক্টর রহমতউল্লাহ স্যারের সহযোগিতায় অন্যান্য সহকর্মীদের নিয়ে-

একটি অ্যাম্বুলেন্স এর মাধ্যমে লোকটিকে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন হাসপাতালে নেয়ার পর চিকিৎসা ব্যবস্থা গ্রহণের পূর্বে হসপিটালের গেটে এম্বুলেন্সে হতভাগা লোকটি নিদারুণ কষ্টে শেষনিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। বর্তমানে লাশটি শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রয়েছে। প্রযুক্তির কল্যাণে হয়তো হতভাগা লোকটির পরিবার তাকে শেষ বিদায় জানাতে পারবে /নয়তো দাফন হবে বেওয়ারিশ লাশ হিসেবে।এমন মৃত্যু কারো কাম্য নয়।
(আল্লাহ সকলকে হেফাজত করুন)।

আপনার মতামত প্রকাশ করেন

আপনার মন্তব্য দিন
আপনার নাম এন্ট্রি করুন