গানে গানে, জীবিকার সন্ধানে !

0
6

এম হায়দার চৌধুরী, হবিগঞ্জ :: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে এক অসহায় পরিবারের জীবন জীবিকা চলে অন্ধ ছেলেদের গান গেয়ে আয় করা অর্থ দিয়ে। দারিদ্রতার নির্দয় নিষ্পেষণে জর্জরিত তাদের জীবন। তবুও এ জীবন তরী বেয়ে যেতে হবে বহুদূর। জীবন চলার পথে ঝড়ঝঞ্ঝা আর উত্তাল জলোচ্ছ্বাস থাকবেই। তাই বলে কি জীবন রথ থেমে যাবে ?

নবীগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম বড় ভাকৈ ফতেহপুরের লামাহাটি গ্রামে নরেন্দ্র বৈষ্ণবের বসবাস। ২ ছেলে ও ২ মেয়ে নিয়ে তার সংসার। অনেক কষ্টে ধারদেনা করে ইতোমধ্যে ২ মেয়েকে বিয়ে দিয়েছেন নরেন্দ্র বৈষ্ণব। বড় ছেলে বিশ্বজিৎ বৈষ্ণব (২৪) ও ছোট ছেলে বিধুর বৈষ্ণব (১২) তারা উভয়েই জন্মান্ধ। জন্মের পর থেকেই পৃথিবীর আলো বলতে কী তা তারা জানে না। পরিবারের কর্তা নরেন্দ্র বৈষ্ণব হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে কায়িক পরিশ্রম করতে পারেন না। তাই অনটনের মধ্যে অনাহারে অর্ধাহারে চলে তাদের সংসার।

এমন মানবেতর অবস্থায় পরিবারের হাল ধরতে বাধ্য হয় অন্ধ বড় ছেলে বিশ্বজিৎ বৈষ্ণব। সে শখের বশে মোবাইল ফোনে গান শুনতে শুনতে এক সময় নিজেনিজেই গান গাইতে আগ্রহী হয়ে উঠে। সে আপন প্রচেষ্টায় হয়ে উঠে বাউল শিল্পী। একদিন এই অন্ধ বাউল শিল্পী বিশ্বজিৎ বাউল অন্য আরেক শিল্পী আব্দুস ছালামের সাথে যোগাযোগ করে কিছু তালিম নেয়। এতে অনেকটা নিজের আয়ত্তে নিয়ে আসে গান ও বেহালা। ইতোমধ্যে তার অন্ধ ছোট ভাই বিধুর বৈষ্ণব নিজেনিজেই ঢোল বাজানো রপ্ত করে ফেলে। একপর্যায়ে এই অন্ধ ভাতৃদ্বয় পরিবারের হাল ধরে। তাদের এই প্রচেষ্টা সফল হয়, বাবার চিকিৎসা, পরিবারের সবার খাবার যোগাড় করতে বেড়িয়ে পড়ে পাড়া-মহল্লায়, গ্রামে-গঞ্জে ও হাট-বাজারে। শুরু হয় তাদের গানে গানে জীবিকার সন্ধান।

আলাপকালে শিল্পী বিশ্বজিৎ বাউল জানান, সংসারের হাল ধরতে ও বাবা-মায়ের মুখে হাসি ফুটানোর তাগিদে ইচ্ছা করলে তারা ভিক্ষায় নামতে পারতেন। কিন্তু ভিক্ষা করা তাদের পছন্দ নয়। তাই মোবাইল ফোনে গান শুনতে শুনতে এবং ওস্তাদ বাউল ছালামের কাছে তালিম নিয়ে তিনি নিজেকে একজন বাউল শিল্পী হিসেবে গড়ে তোলেন। মাঝে মধ্যে লোকজন তাদেরকে বিভিন্ন গানের আসরে ডেকে নেন। সেখানে ভালোই টাকা পাওয়া যায়।
এরই মধ্যে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান তাদের দুইভাইকে প্রতিবন্ধী ভাতা পাওয়ার ব্যবস্থা করে দিয়েছেন। এখন তার স্বপ্ন হলো একজন ভালো বাউল শিল্পী হওয়া। দেশি বিদেশি সাহায্য সংস্থা এবং সরকারের পক্ষ থেকেও তাদের পরিবারের প্রতি সহযোগীতার হাত প্রসারিত হবে এটাই বিশ্বজিৎ বাউলের প্রত্যাশা।

আপনার মতামত প্রকাশ করেন

আপনার মন্তব্য দিন
আপনার নাম এন্ট্রি করুন