৯৯৯-এ ফোন, বৃদ্ধকে উদ্ধার করলো শায়েস্তাগঞ্জ থানার পুলিশ

0
16

এম হায়দার চৌধুরী শায়েস্তাগঞ্জ (হবিগঞ্জ):: হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ থেকে ৯৯৯-এ ফোন পেয়ে এক মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধকে উদ্ধার করেছে শায়েস্তাগঞ্জ থানার পুলিশ। একই সাথে ওই বৃদ্ধের যাবতীয় সেবাযত্ন ও চিকিৎসা দিচ্ছেন তারা।

জানা গেছে, শনিবার (১৭ জুলাই) শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার নুরপুর ইউনিয়নের নছরতপুর এলাকায় একজন মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধকে রাস্তার পাশে পড়ে থাকতে দেখে ৯৯৯-এ ফোন দেন স্থানীয় এক পরোপকারী ব্যক্তি। পরে ৯৯৯ থেকে শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশকে জানালে এসআই সনজিত ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করেন।

উদ্ধার করার পর, তিনি ওই মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধের নখ কেটে দেন নিজ হাতে। পরে নরসুন্দর ডেকে এনে চুল কেটে সাবান দিয়ে গোসল করান। তারপর নতুন পাঞ্জাবি পায়জামা পরিয়ে ওই বৃদ্ধের খাবার ও চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন তিনি।

একজন পুলিশ কর্মকর্তার এমন মানবিক কাজ নতুন উদাহারণ সৃষ্টি করল শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশ। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই সেবা-যত্ন কাজে নিয়োজিত শায়েস্তাগঞ্জ থানার এসআই সনজিত চন্দ্র নাথকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন। এসআই’র এমন কর্মকান্ড সত্যিই প্রশংসার দাবীদার।

উপজেলার নুরপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য (মেম্বার) তানভীর হোসেন শফিক বলেন, ‘আইনশৃঙ্খলার পাশাপাশি পুলিশের এমন মানবিক কাজ সত্যিই মহৎ। এসআই সনজিতের এমন কাজ নিজ চোখে দেখে খুব ভাল লেগেছে। তা দেখে পুলিশের অন্যান্য সদস্যরা এমন মানবিক কাজে উৎসাহিত হবেন।’

এসআই সনজিত চন্দ্র নাথ বলেন, ৯৯৯ থেকে ফোন পেয়ে ওই বৃদ্ধকে উদ্ধার করে গোসল দিয়ে নতুন জামাকাপড় পরাই। এরপরে উনার নক কেটে দেই। সমাজের প্রতিটি অসহায় মানুষের পাশে আমাদের দাঁড়ানো উচিত।

এ বিষয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব বলেন- ৯৯৯ থেকে ফোন পেয়ে মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধকে উদ্ধার করে তার সেবাযত্ন করা হয়েছে। নতুন পায়জামা-পাঞ্জাবিও দেয়া হয়েছে। পুলিশ অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়াতে সবসময় প্রস্তুত।

আপনার মতামত প্রকাশ করেন

আপনার মন্তব্য দিন
আপনার নাম এন্ট্রি করুন